মঙ্গলবার, ২০ এপ্রিল ২০২১, ১১:২৪ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
গাইবান্ধায় লাইসেন্সবিহীন ফার্মেসি ব্যবসা জমজমাটঃ নেই প্রশিক্ষিত ফার্মাসিস্ট? প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা সচেতন নাগরিকের!! ধান কাটতে গাইবান্ধার ৭৩ কৃষি শ্রমিক কুমিল্লা ও নন্দীগ্রামে পলাশবাড়ী হাসপাতালের জন্য প্রয়োজনীয় সংখ্যক ডাক্তার ও নার্স চাইলেন পৌর মেয়র জননেতা বিপ্লব গোবিন্দগঞ্জে পানির ট্যাঙ্কে পড়ে দুই সহোদরের মৃত্যু গাইবান্ধার স্কুলছাত্রী অপহরণের তিনদিন পর পলাশবাড়ী থেকে উদ্ধারঃ বাবলা মিয়া নামে একজন গ্রেফতার!! করনায় অসচেতন মানুষঃ মানছেনা স্বাস্থ্যবিধি ও লকডাউন; ট্রাফিক ও পুলিশের তদারকি!! করনায় বিপাকে নিম্ন আয়ের মানুষঃ গাইবান্ধা জেলা পুলিশের উদ্যোগে বগুড়ার হাওর এলাকায় কৃষি শ্রমিক প্রেরণ! গোবিন্দগঞ্জে প্রতারক স্বামীর বিরুদ্ধে স্ত্রীর সংবাদ সম্মেলন গোবিন্দগঞ্জে আহত ট্রলি শ্রমিক জিল্লুরের চিকিৎসায় সাহায্যের আবেদন সরকারী পুকুর খননের সময় দেড়শ বছরের পুরাতন বিষ্ণুমূর্তি উদ্ধার

টাকা চুরির অপবাদে গাইবান্ধার শ্রমিক আশরাফুলকে গরম ছ্যানি দিয়ে ছ্যাকাসহ নির্যাতনের অভিযোগ ঢাকার রেস্টুরেন্ট মালিকের বিরুদ্ধে

জিল্লুর রহমান পলাশ, গাইবান্ধা
  • প্রকাশের সময় : বুধবার, ৭ এপ্রিল, ২০২১
রাজধানীর ধানমন্ডিতে টাকা চুরির অপবাদ দিয়ে গাইবান্ধার সদর উপজেলার আশরাফুল ইসলাম (২০) নামে এক রেস্টুরেন্ট শ্রমিকের শরীরে গরম ছ্যানি দিয়ে ছ্যাকা ও মারপিটের অভিযোগ উঠেছে অনলাইন রেস্টুরেন্ট মালিকের বিরুদ্ধে। অভিযুক্ত ওই রেস্টুরেন্টের মালিকের নাম রহিত মিয়া।
জীবন বাঁচাতে শ্রমিক আশরাফুল ইসলাম কোনমতে গত ৬ এপ্রিল রাতে নিজ বাড়ি গাইবান্ধায় ফিরেছেন। গুরুত্বর অবস্থায় বুধবার সকালে আশরাফুলকে গাইবান্ধা আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আশরাফুল ইসলাম গাইবান্ধা সদর উপজেলার বোয়ালি ইউনিয়নের ফলিয়া গ্রামের আজিজ মিয়া ছেলে।
এর আগে, গত ৫ এপ্রিল ঢাকার ধানমন্ডি এলাকার মিতালী রোডের মিতালি টেলিকমের সামনের ১৭/এ নম্বর গেটের কিডস্ জি রেস্টুরেন্টে (অনলাইনে পার্সেল বিক্রি) আশরাফুল ইসলামকে নির্যাতনের ঘটনা ঘটে। তবে চেষ্টা করেও অভিযুক্ত মালিক রহিত মিয়ার কোন বক্তব্য জানা যায়নি।
সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আশরাফুল ইসলাম জানান, টাকা চুরির অপবাদ দিয়ে রুমের ভিতরে আটকায়া স্কেল আর কাঠের বাতি দিয়া আমাকে মারধর করা হয়েছে। আমার হাতের নখ প্লাচ দিয়ে চাপ দেওয়া হয়। শুধু তাই নয়, গরম ছ্যানি দিয়া আমার পুরো শরীরে ছ্যাকা দিছে।
টাকা নেওয়ার কথা অস্বীকার করি এবং মালিক রহিত মিয়ার হাত-ধরি তবুও তিনি মারধর করতেই থাকেন। এমনকি তিনি বলেন, তুই টাকা নিছিস স্বীকার কর না হলে ঘড়ির কাঁটা যতক্ষণ ঘুরবে; ততক্ষণ তোর মাইর থামবে না।
আশরাফুল আরও জানায়, শেষ পর্যন্ত জীবন বাঁচাতে টাকার কথা স্বীকার করে বলেছি, হ আমি টাকা নিছি। তখন রহিত আমার কাছে জোর করে সাদা কাগজে স্বাক্ষর নিছে। এসময় তিনি আমার মুখে টাকা নেওয়া স্বীকারের কথা তার মোবাইলে রের্কড করে রাখেন। এরপর রহিত মিয়া আরও বলেন, বাড়িতে যাইয়া কোন সমস্যা করবি না, যদি কিছু করিস তাহলে তোর ভিডিওটা ভাইরাল করে দেব।
আশরাফুল জানায়, বাড়ির পাশের রাকিব নামে একজনের মাধ্যমে ঢাকার ওই রেস্টুরেন্টে কাজ নেই। গত ১ এপ্রিল কাজ শুরু করি। আমি রুম ঝাড়ু দিতাম, একটু মোছা দিতাম আর ছাঁদের ফুল গাছে পানি দিতাম। মালিক রহিতের দুটা ভাই আছে তাদের খাবারের পার্সেল আনি দিতাম। গত চারদিন এইসব কাজেই করেছি। কিন্তু গত ৫ এপ্রিল হঠাৎ করে ৮ হাজার চুরির অপবাদ দেয়া হয় তাকে। কিন্তু আমি অস্বীকার করলে প্রথমে কাঠ দিয়ে বেধরক মারপিট করেন রহিত মিয়া। মালিক রুহিত মিয়া ছাড়াও তার সহযোগী মিজানুর আমাকে মারধরসহ প্লাস দিয়ে হাতের নখ তুলে নেয়ার চেষ্টা করে। এছাড়া তারা গরম ছ্যানি দিয়ে শরীরের বিভিন্ন স্থানেও ছ্যাকা দেয়। এ ঘটনায় রেস্টুরেন্ট মালিক রহিত মিয়া ও সহযোগি মিজানুরের কঠিন শাস্তির দাবিও করেন আশরাফুল।
এ বিষয়ে আশরাফুলের বাবা আজিজ মিয়া বলেন, রেস্টুরেন্টের মালিক রুহিত আশরাফুলকে মারধর ছাড়াও শরীরের গরম ছ্যানির ছ্যাকা দিয়েছে। প্লাচ দিয়ে তার নখ তুলে নেওয়ার চেষ্টা করে। শুধু তাই নয়, মারধরের পর আশরাফুলের স্বীকারোক্তি জোর করে ভিডিও ধারণ এবং সাদা কাগজে স্বাক্ষর নেয় মালিক রহিত। এছাড়া আশরাফুলকে দিয়ে ফোন করে বাড়ি থেকে আট হাজার টাকা নেওয়ার পর তাকে ছেড়ে দেয় রহিত। এরপর ৬ এপ্রিল রাতে শরীরে ক্ষত নিয়ে অতিকষ্টে আশরাফুল বাড়িতে ফেরে। আশরাফুলকে নির্যাতনের এমন ঘটনার কঠোর বিচার দাবি করেন তিনি।
আশরাফুলকে শারীরিক নির্যাতনের বিষয়ে গাইবান্ধা সদর হাসপাতালের মেডিক্যাল অফিসার সুজন জানান, তার পিঠে ও হাতে গরম ছ্যাকার একাধিক চিহ্ন রয়েছে। ভর্তির পর থেকে তাকে প্রয়োজনীয় চিকিৎসা সেবা দেওয়া হচ্ছে। তবে শারীরিক সুস্থ হতে কিছুদিন সময় লাগবে।
আশরাফুলকে নির্যাতনের ঘটনা জানা আছে সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাহফুজার রহমানের। তিনি জানান, বিষয়টি জানার পর হাসপাতালে আশরাফুলের খোঁজ খবর নেয়া হয়েছে। যেহেতু ঘটনাটি ঢাকায় ঘটেছে তাই তার পরিবারকে ঢাকায় গিয়ে মামলার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

সংবাদ টি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

এ বিভাগের আরো সংবাদ

আজকের নামাজের সময়সুচী

  • ফজর
  • যোহর
  • আছর
  • মাগরিব
  • এশা
  • সূর্যোদয়
  • ৪:১৭ পূর্বাহ্ণ
  • ১২:০১ অপরাহ্ণ
  • ১৬:৩০ অপরাহ্ণ
  • ১৮:২৬ অপরাহ্ণ
  • ১৯:৪৩ অপরাহ্ণ
  • ৫:৩৩ পূর্বাহ্ণ
bdgaibandha.news©2020 All rights reserved
themesba-lates1749691102