শনিবার, ৩১ জুলাই ২০২১, ০৪:২২ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
গাইবান্ধায় জি বয়েজ ৯৬-৯৮ ব্যাচের আয়োজনে অক্সিজেন ব্যাংক রিফিল বিতরণ গাইবান্ধার ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান সাকিব ট্রেডার্স এর অনিয়ম ও দুর্নীতির বিরুদ্ধে মানববন্ধন পলাশবাড়ীতে ট্রাক চাপায় সিএনজি চালকসহ নিহত ৪ঃ আহত ৩ জন করনায় গাইবান্ধায় সেনাবাহিনীর মানবিক সহায়তা প্রদান ত্রাণ নয়, তিস্তা মহাপরিকল্পনার বাস্তবায়ন চায় লালমনিরহাট গৃহহীন শত শত পরিবার ভারতীয় নবজাগরণের প্রাণপুরুষ ঈশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগর এর ১৩১তম প্রয়াণ দিবসে আলোচনা পলাশবাড়ীতে বালুমহাল ও ভূমি ব্যবস্থাপনা আইন অমান্য করায় জরিমানা সাদুল্লাপুরে বসতবাড়িতে আগুনে পুড়ে পাঁচ লক্ষাধিক টাকার ক্ষতি লকডাউনেও থেমে নেই মানুষের ব্যস্ততা গাইবান্ধা সদর ইন্দারপাড় মোড়ে অসহায় মছিরনকে টিনের ঘর বিতরণ করলেন অংকুর ফাউন্ডেশন

সাদুল্লাপুরে ৩ বছর ধরে বেতন-ভাতা স্থগিত দৃষ্টিহীন স্কুল পিয়ন আহাম্মদের, ঘটনা তদন্তে শিক্ষা অফিস

জিল্লুর রহমান পলাশ, গাইবান্ধা ৷
  • প্রকাশের সময় : রবিবার, ২৯ নভেম্বর, ২০২০
জন্ম তারিখ জটিলতা দেখিয়ে গাইবান্ধা সাদুল্লাপুরের কামারপাড়া বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ষাটার্দ্ধ দৃষ্টিহীন পিয়ন আহাম্মদ আলী বেতন-ভাতা ৩ বছর ধরে স্থগিতের ঘটনা তদন্ত শুরু করেছে জেলা শিক্ষা অফিস। আগামী ৩০ নভেম্বর, সোমবার বিকেল ৩টায় জেলা শিক্ষা কর্মকর্তার কার্যালয়ে এ বিষয়ে তদন্ত কার্যক্রম অনুষ্ঠিত হবে। তদন্তকার্যে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক (ভারপ্রাপ্ত) ও সভাপতিকে প্রয়োজনীয় নথিপত্রসহ উপস্থিত থাকতে নির্দেশ দেয়া হয়েছে।
গাইবান্ধা জেলা শিক্ষা অফিসার মো. এনায়েত হোসেন স্বাক্ষরিত পত্র (স্মারক নং জেশিঅ/গা/২০২০/৮৬২/৩) মাধ্যমে এই নির্দেশনা দেয়া হয়। এরআগে, গত ১১ নভেম্বর বকেয়া বেতন-ভাতা ও ঘটনার প্রতিকার চেয়ে জেলা প্রশাসক, জেলা শিক্ষা অফিসসহ সংশ্লিষ্ট শিক্ষা দপ্তরে লিখিত অভিযোগ করেন আহাম্মদ আলী। ওই অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে গত ২৪ নভেম্বর জেলা শিক্ষা অফিস ঘটনাটি তদন্তের উদ্যোগ নেয়।

লিখিত অভিযোগে জানা যায়, ১৯৮৯ সালের ১৫ মার্চ কামারপাড়া বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের চতুর্থ শ্রেণির কর্মচারী পিয়ন (এমএলএসএস) পদে যোগদান করেন আহাম্মদ আলী। ২০০২ সালে তার যোগদানের সকল কাগজপত্র যাছাই-বাছাইসহ অডিট সম্পূর্ণ করে সংশ্লিষ্ট শিক্ষা অধিদপ্তর। ২০০৩ সালে বিদ্যালয়টি এমপিওভুক্ত হলে পিয়ন পদে আহাম্মদ আলী ইনডেক্সভুক্ত (ইনডেক্স নং ৫৪৫২০৯) হন। একই বছরের মে মাসে তার বেতন-ভাতা মঞ্জুর হয়। এরপর থেকে নিয়মিত বেতন-ভাতা সর্বশেষ ২০১৭ সালের জুন পর্যন্ত উত্তোলন করেন তিনি।

পিয়ন আহাম্মদ আলী জানান, শিক্ষাগত যোগ্যতার সনদ ও জন্ম নিবন্ধন সনদ অনুযায়ী তার জন্ম তারিখ ১৯৬১ সালের ১১ মার্চ। কিন্তু ২০০৮ সালে জাতীয় পরিচয়পত্রে ভুলক্রমে জন্ম তারিখ ৭ মার্চ ১৯৪৮ হয়। এই ভুলের সুযোগে তৎকালীন বিদ্যালয়ের সভাপতি সুবল চন্দ্র সরকার তার বেতন স্থগিত করাসহ ৬০ বছর চাকরি পূর্ণ দেখিয়ে সরকারী কোষাগারে টাকা ফেরতের নির্দেশ দেন। অথচ নীতিমালা অনুযায়ী তার চাকরির মেয়াদ (অবসর গ্রহণ) শেষ হবে আগামী ২০২১ সালের ফেব্রুয়ারী।

আহাম্মদ আলীর অভিযোগ, পিয়ন পদ শূন্য করে নিয়োগ বাণিজ্যের উদ্দেশ্যে সভাপতি সুবল চন্দ্র সরকার ক্ষমতার অপব্যবহার করে বেতন স্থগিতের সিন্ধান্তসহ বাধ্যতামূলক অবসর গ্রহণে তাকে চাপ দেয়াসহ নানা অপতৎপরতা চালাচ্ছেন। এ কারণে বকেয়া বেতন ও জন্ম তারিখ সংশোধনের জন্য ৩ বছর ধরে নানা চেষ্টাসহ সংশ্লিষ্টদের দ্বারে দ্বারে ঘুরেও প্রতিকার মেলেনি। বরং বেতন না পাওয়ায় দিনদিন মানুষিক দুশ্চিন্তায় শারীরিক অসুস্থ্যতার পাশাপাশি বর্তমানে হারিয়েছে দৃষ্টি ও শ্রবণ শক্তিও।

আহাম্মদ আলীর নাতি আতাউর রহমান জানান, বিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকে দাদা পিয়নের চাকরি করছেন। মাসের বেতনের টাকায় সংসার চললেও গত ৩ বছর ধরে তার বেতন স্থগিত। এমন অবস্থায় চরম অর্থ কষ্টে বিনা চিকিৎসায় স্ত্রীকে নিয়ে মানবেতর দিনাতিপাত করছেন তিনি। জীবন-মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে তার সমস্ত বকেয়া বেতন ও অবসর গ্রহণসহ ভাতা প্রদানের জন্য বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও সভাপতিসহ সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে জোর দাবি জানান তিনি।

সংবাদ টি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

এ বিভাগের আরো সংবাদ

আজকের নামাজের সময়সুচী

  • ফজর
  • যোহর
  • আছর
  • মাগরিব
  • এশা
  • সূর্যোদয়
  • ৪:০৪ পূর্বাহ্ণ
  • ১২:০৮ অপরাহ্ণ
  • ১৬:৪৩ অপরাহ্ণ
  • ১৮:৪৯ অপরাহ্ণ
  • ২০:১১ অপরাহ্ণ
  • ৫:২৪ পূর্বাহ্ণ
bdgaibandha.news©2020 All rights reserved
themesba-lates1749691102